Indian Prime Time
True News only ....

‘বাংলায় দরকার বিজেপি সরকার’ মন্তব্য স্মৃতি ইরানির

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

সব্যসাচী মজুমদারঃ জলপাইগুড়িঃ জলপাইগুড়ি সদর বিধান সভার বিজেপি প্রার্থী সৌজিৎ সিংহের সমর্থনে নির্বাচনী প্রচারে বুধবার জলপাইগুড়িতে আসেন কেন্দ্রীয় নারী ও শিশু কল‍্যাণ মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি। এদিন কৃষি বাগানের সভা মঞ্চের কিছুটা দূরে মন্ত্রী হেলিকপ্টারে নামেন। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি সেখান থেকে গাড়ি করে সভা মঞ্চে উপস্থিত হন। এদিনের সভা মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন বিজেপি প্রার্থী সৌজিৎ সিংহ, সাংসদ জয়ন্ত রায়, বিজেপি জেলা সভাপতি বাপী গোস্বামী সহ অন্যান্যরা।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জলপাইগুড়ি শহর সংলগ্ন কৃষি বাগান এলাকায় নির্বাচনী জনসভায় বক্তব্য রাখেন‌। এদিন কেন্দ্রীয় নারী ও শিশু কল্যাণ মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি জলপাইগুড়ি শহর সংলগ্ন কাঠের ব্রীজ কৃষি বাগান এলাকার নব মিতালী সংঘের ময়দানে বিজেপির জলপাইগুড়ির ৭ টি বিধানসভার প্রার্থী সৌজিৎ সিংহ সহ অন্যান্য প্রার্থীদের প্রচারে জনসভায় বক্তব্য রাখেন এবং ঠাকুর পঞ্চানন বর্মাকে শ্রদ্ধা জানিয়ে তিনি বক্তব্য রাখতে গিয়ে বলেন, “তৃণমূল কংগ্রেস গুন্ডামি করছে। বাংলার বিভিন্ন বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগে কাটমানি হয়েছে বলে অভিযোগ করেন তিনি। তৃণমূল কংগ্রেস নিজের দলের কর্মীদের কাছ থেকেও কাটমানি নিচ্ছে। আয়ুষ্মান যোজনার টাকা পাচ্ছে না। এখানে জনগণ জয় শ্রীরাম বলছেন। দিদি জয় শ্রীরাম শুনে বিরক্ত হচ্ছেন। আর দিদি নন্দীগ্রামে গিয়ে চন্ডীপাঠ করছেন। এছাড়া বিজেপি সরকার গঠন করে চাবাগানের শ্রমিকদের জন্য ৩৫০টাকা মজুরী করবে। উত্তরবঙ্গের জন্য সেন্ট্রাল ইউনিভার্সিটি করা হবে”।

- Sponsored -

- Sponsored -

এমনকি আজ মঞ্চে বক্তব্য রাখতে উঠে বিদ্যুৎ বিভ্রাটের শিকার হন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি। আচমকা তাঁর বক্তব্য রাখার সময় বিদ্যুৎ বিভ্রাট হয়। বক্তব্য না থামিয়ে মাইক ছাড়াই বক্তব্য শেষ করলেন স্মৃতি ইরানি। সেই সাথে অভিযোগ করলেন যে, “তৃণমূলের চক্রান্তেই এই বিদ্যুৎ বিভ্রাট”।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored