Indian Prime Time
True News only ....

বিশ্ববিদ্যালয়ের ল্যাব থেকে খোয়া গেল লক্ষাধিক টাকার যন্ত্রাংশ

- Sponsored -

- Sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

চয়ন রায়ঃ কলকাতাঃ গতকাল যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ল্যাবরেটরি থেকে কয়েক লক্ষ টাকার গুরুত্বপূর্ণ যন্ত্রাংশ চুরি হয়ে গেল। প্রায় ৭০ শতাংশ যন্ত্রাংশ চুরি হয়ে গেছে।

জানা গিয়েছে, গতকাল সকালে বিভাগীয় প্রধানরা ল্যাবরেটরি এসে গেটের তালা ভাঙা দেখে ভিতরে ঢুকতেই দেখতে পান যে কিছু বেশ কিছু যন্ত্রাংশ নেই আর বাকি কিছু যন্ত্রাংশ একপাশে গুছিয়ে রাখা রয়েছে। সম্ভবত পরে সেগুলিও নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনায় ছিল। অধ্যাপকেরা বলেন, “এমন কিছু যন্ত্রাংশ চুরি গিয়েছে যা ল্যাবরেটরির জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ”।

চুরির ঘটনার খবর পেতেই তত্‍পর হয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার স্নেহমঞ্জু বসু বললেন, “গতকাল এই খবর পেয়েই বিভাগীয় প্রধানকে লিখিত অভিযোগ জমা দিয়ে সেই চিঠি পেয়েই থানায় এফআইআর দায়ের করা হয়। এই ঘটনা প্রসঙ্গে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সুরঞ্জন দাস বলেছেন, “এটা অত্যন্ত উদ্বেগজনক ঘটনা। পুলিশকে জানানো হয়েছে। পুলিশের রিপোর্ট পেলেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে”। পুলিশ আধিকারিকরা অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে গেছেন।

- Sponsored -

- Sponsored -

অবশ্য আগেও যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগ থেকেও বেশ কিছু সামগ্রী চুরি গিয়েছিল। শিক্ষক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক পার্থ প্রতিম রায় জানিয়েছেন, “এর আগে বাংলা বিভাগেও চুরি হয়েছে। অনেকেরই আশঙ্কা ভিতরের কেউই চুরিতে সাহায্য করছেন”।” এক অধ্যাপক আশঙ্কা প্রকাশ করে বলে দিয়েছেন, “শুধু বাংলা বা সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ নয় এতদিন বন্ধ থাকার পর অন্যান্য বিভাগে গিয়েও যে কি দেখতে হবে তা কে জানে”।

করোনা সংক্রমণের জেরে দীর্ঘদিন থেকে বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকায় অনলাইনে ক্লাস হওয়ায় অধ্যাপক-অধ্যাপিকারা কলেজেও কম আসেন। এই সুযোগকে কাজে লাগিয়েই লক্ষাধিক টাকার সামগ্রী চুরি হয়ে গেল। কিন্তু কড়া নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকা সত্ত্বেও এই চুরির ঘটনাটি কিভাবে ঘটলো তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored