Indian Prime Time
True News only ....

দিল্লি হাইকোর্টে জোর ধাক্কা অরবিন্দ কেজরীওয়ালের

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

- Sponsored -

- Sponsored -

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ নয়া দিল্লিঃ আবগারি দুর্নীতি মামলায় দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীওয়াল ইডির (এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট) হাতে গ্রেফতারীকে চ্যালেঞ্জ করে দিল্লি হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন। কিন্তু হাইকোর্ট ওই আর্জি খারিজ করে দিয়েছে। তাই আপাতত আগামী ১৫ ই এপ্রিল অবধি অরবিন্দ কেজরীওয়ালকে তিহার জেলেই থাকতে হবে।

ইতিমধ্যেই ইডি তাঁকে আবগারি দুর্নীতি কাণ্ডে মূল মাথা বলে দাবী করেছে। এদিনও আদালতে শুনানি চলাকালীন ইডির তরফে অরবিন্দ কেজরীওয়ালের মুক্তির বিরোধীতা করা হয়। ইডির আইনজীবীর দাবী, “অরবিন্দ কেজরীওয়াল তদন্তে কোনোরকম সহযোগীতা করছেন না।”এদিকে অরবিন্দ কেজরীওয়ালের আইনজীবী জানান, “তাঁকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবেই গ্রেফতার করা হয়েছে।” কিন্তু বিচারপতিরা এই যুক্তি না মেনে উল্টে জানায়, ” অরবিন্দ কেজরীওয়ালকে গ্রেফতার করার মতো ইডির হাতে যথেষ্ট পরিমাণ নথি ছিল। এমনকি, তিনি তদন্তে অসহযোগীতা করায় এই মামলায় হেফাজতে থাকা অন্যান্য অভিযুক্তরাও সমস্যায় পড়ছেন।”

- Sponsored -

- Sponsored -

পাশাপাশি এদিন নির্দেশ দিতে গিয়ে এও জানিয়েছে, “এই মামলা কেন্দ্রীয় সরকার বনাম কেজরীওয়ালের নয়, বরং ইডি বনাম কেজরিওয়ালের। আর বিচারপতিরা রাজনৈতিক বাধ্যবাধকতা নয়, বরং আইনী যুক্তির ভিত্তিতে রায় দেন।” হাইকোর্টের এই নির্দেশের পর বিজেপি আপকে নিশানা করে জানায়, “রাজনৈতিক ষড়যন্ত্রের যে অভিযোগ আপ ও অরবিন্দ কেজরীওয়ালের তরফ থেকে তোলা হচ্ছিল, তা যে সঠিক নয় তা আদালতের নির্দেশেই প্রমাণিত হয়ে গেলো।”

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored