Indian Prime Time
True News only ....

জলের অভাব মেটাতে পঞ্চায়েত অফিসেই বিক্রি হচ্ছে জল

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ রানীগঞ্জঃ রানীগঞ্জ ব্লকের জেমারি পঞ্চায়েত এলাকায় পানীয় জলের প্রবল অভাব রয়েছে। তাই জেরামি পঞ্চায়েত সমস্যা সমাধানে এগিয়ে এসেছে। এই পঞ্চায়েত অফিস থেকেই প্রতি লিটার ‘আরও’ জল ৪০ পয়সায় বিক্রি হচ্ছে। আর তা কিনতে সকালবেলা ১০ টা থেকে ৫ টা সোমবার থেকে শনিবার পঞ্চায়েতে লাইন পড়ছে।

প্রতিদিনই এলাকার কেউ ২০ লিটার থেকে ৩০ লিটার জল নিয়ে যাচ্ছে। পঞ্চায়েতের প্রধান শিল্পী মাজি বিষয়টি মেনে নিয়ে জানান, “একটি বেসরকারী সংস্থা এই প্রকল্পটা বানিয়েছিল। সেখান থেকে গ্রামের মানুষজন জল নিতেন। পরে সেই কোম্পানী বন্ধ হয়ে গেলে আমরা সেই প্রকল্পটা চালিয়ে যাচ্ছি। এতে কয়েকজন বেকার যুবকের কর্মসংস্থানও হয়েছে।

অনেকেই জল কিনে নিয়ে গিয়ে বাড়ি বাড়ি বিক্রি করেন। এতে কিছু উপার্জনও হয়।” এদিকে এলাকার গরীব মধ্যবিত্ত মানুষ পরিশ্রুত পানীয় জল পেয়ে খুশী। কিন্তু অনেকেই বিনা পয়সায় বাড়ির কাছে জল পৌঁছে যাক চান। তবে এই মুহূর্তে পঞ্চায়েত সেদিকে না গিয়ে পরিশ্রুত জলের ব্যবস্থা করেছে।

- Sponsored -

- Sponsored -

পানীয় জলের ব্যবসায়ীরা বলছেন, “এক ডিব্বা জল বিক্রি করতে পারলে ১২ টাকা লাভ হয়। সারাদিনে যা জল বিক্রি হয় তাতে তাদের পরিবার স্বাচ্ছন্দ্যেই চলে। কিন্তু এই জল বিক্রির প্রকল্প চলার পাশাপাশি এলাকার সাধারণ মানুষদের পানীয় জল দেওয়ার জন্য একটি নতুন প্রকল্পের কাজও শুরু হয়েছে। তবে সেই প্রকল্প শেষ হবে কবে তা কারোর জানা নেই।”

অর্থাৎ এখনো বেশ কয়েক বছর এই গ্রাম সহ পার্শ্ববর্তী এলাকার সাধারণ মানুষজনকে পরিশ্রুত পানীয় জল কিনে নিয়ে যেতে হবে। এছাড়া এলাকাবাসীদের বাড়ির অন্যান্য কাজও কুয়ো বা পুকুর থেকেই করতে হবে।

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored