Indian Prime Time
True News only ....

প্রধানমন্ত্রীর সভার আগেই নদীয়া প্রায় যানবাহন শূন্য

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ নদীয়াঃ আজ নদীয়ার কৃষ্ণনগরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সভা করতে আসছেন। ফলে বিজেপির তরফে বাসগুলি অগ্রিম ভাড়া নেওয়ায় সারা জেলা জুড়ে বাস নিতান্ত অনেক কম। তাই জেলার নিত্যযাত্রী সহ সাধারণ মানুষ চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন। এর জেরে নিত্য যাত্রীদের একাংশ বাস না পাওয়ায় অত্যন্ত ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

বিজেপি সূত্রে খবর, এবার বিজেপি কৃষ্ণনগর লোকসভাকে পাখির চোখ করতে চাইছে। ফলে নরেন্দ্র মোদীর জনসভায় নদীয়া ও মুর্শিদাবাদ থেকে প্রায় দু’লক্ষ কর্মী সমর্থককে আনার লক্ষ্য রয়েছে। কৃষ্ণনগরের সভাস্থল ছাপিয়ে গোটা শহর বিজেপি কর্মী-সমর্থকে ভরিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনাও করা হয়েছিল। এছাড়া বিজেপি নেতারা জেলার বাসস্ট্যান্ড থেকে রেলস্টেশন, সড়ক থেকে ফেরিঘাট সব জায়গাতেই ভিড় বাড়াতে চাইছেন।

- Sponsored -

- Sponsored -

পাশাপাশি এই জনসভায় লোক আনতে আলাদা আলাদা সাংগঠনিক জেলার জন্য ভিন্ন ভিন্ন পরিবহণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এই জনসভায় কর্মী-সমর্থকদের জমায়েতের জন্য নদীয়ার তেহট্ট, কালীগঞ্জ, করিমপুর, নাকাশিপাড়া, পলশিপাড়া সহ বিভিন্ন ব্লক থেকে সব মিলিয়ে মোট ৪১২টি বাস এবং একশোর বেশী ছোটো গাড়ি ভাড়া করা হয়েছে।

জেলার বাসমালিক সমিতির সভাপতি কুণাল ঘোষ জানান, ‘‘প্রধানমন্ত্রীর সভার কারণে বহু বাস তুলে নেওয়া হয়েছে। যে বাসগুলি থাকবে তা দিয়ে পরিষেবা স্বাভাবিক রাখার চেষ্টা করা হবে।’’ বিজেপির সাংগঠনিক জেলা সভাপতি অর্জুন বিশ্বাস বলেন, ‘‘সাধারণ যাত্রীদের হয়রানি হবে এ কথা মানছি। প্রধানমন্ত্রীর সভা তো জনসাধারণের জন্যই। সাধারণ মানুষ হাসিমুখে এক দিনের সমস্যা মেনে নেবেন। আমরা তাদের কাছে সহযোগীতা চাইছি।’’

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored