Indian Prime Time
True News only ....

তুমুল বর্ষণে বাঁধ ভেঙে জলে ভাসছে সহস্র পরিবার

- sponsored -

- sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ মেদিনীপুরঃ নিম্নচাপের জেরে একটানা প্রবল বর্ষণে কেলেঘাই নদীর বাঁধ ভেঙে মেদিনীপুরের ঘাটাল সহ গ্রামীণ বিস্তীর্ণ এলাকা জলে প্লাবিত হয়েছে। ঘাটাল পৌরসভার দু’নম্বর ওয়ার্ডের রাজ্য সড়কে জল থাকায় যান চলাচল বন্ধ হয়ে পড়েছে।

কেলেঘাই নদীর বাঁধ ভেঙে যাওয়ায় ৪০ হাজার পরিবার জলের তলায় আছে। কেলেঘাই আমগেছিয়ার ডাকবাংলোর কাছে ছিটকিনি এলাকায় নদী বাঁধ ভাঙায় নৈপুর, বরহাট, বারচৌকা, গোপালপুর, ব্রজলালপুর, চিশতীপুর এক নম্বর, দুই নম্বর, অমর্ষি এক নম্বর, দুই নম্বর এলাকাগুলো প্রচন্ড ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে পড়েছে।

অন্যদিকে পশ্চিম মেদিনীপুরে শিলাবতীর জলে পুনরায় ঘাটাল থানা এলাকা জলের তলায় চলে গেছে। বিদ্যুত্‍ দপ্তরের এক কর্মীরও বন্যায় ভেসে মৃত্যু হয়েছে। প্রায় তিন হাজার পরিবারকে উঁচু স্থানে সরানো হয়েছে। পটাশপুরে স্পিড বোর্ড উদ্ধারকাজে নামানো হয়েছে।

- Sponsored -

- Sponsored -

পূর্ত দপ্তরের পক্ষ থেকে পারাপারের জন্য সরকারী খেয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। দ্রুত গতিতে ঘাটালে জল বাড়তে থাকায় আবারো ভয়াবহ বন্যার আশঙ্কা দেখা দিচ্ছে। অতি ভারী বৃষ্টির ফলে ঘাটাল ব্লকের মনসুকা এলাকায় ঝুমী নদীর জলস্তর বেড়ে যাওয়ায় এলাকাবাসীরা চরম দূর্ভোগের মুখে পড়েছেন।    

প্রসঙ্গত, এক মাস আগের বন্যায় ঝুমী নদীর জলের তোড়ে একাধিক কাঠের সাঁকো ভেঙে যাওয়ায় মনসুকা গ্রামের মানুষ অসুবিধার মুখে পড়েছিল। তাই জল কমতেই যাতায়াতের জন্য বাঁশ ও কাঠের সাঁকো পুনরায় তৈরী করেছিল।

কিন্তু আবারও বৃষ্টির ফলে ঝুমী নদীর জল বেড়ে যাওয়ায় সমস্ত সাঁকো জলের তোড়ে ভেঙে নিয়ে চলে গেছে।
ফলে এলাকার মানুষকে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নদীতে নৌকা পারাপার করতে হচ্ছে। 

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored