Indian Prime Time
True News only ....

এবার অনুমোদন মিলল Johnson & Johnson ভ্যাক্সিনের

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ নয়া দিল্লিঃ আজ ভারত সরকারের পক্ষ থেকে জনসন অ্যান্ড জনসন সংস্থার তৈরী সিঙ্গল ডোজ করোনা ভ্যাক্সিনকে জরুরী প্রয়োগের ভিত্তিতে অনুমোদন দেওয়া হলো। গত ৫ ই আগস্ট জনসন অ্যান্ড জনসন সংস্থা সিঙ্গল ডোজ করোনা ভ্যাক্সিন অনুমোদনের জন্য আবেদন জানিয়েছিল। ভারত বায়োটেকের কোভ্যাক্সিন, সেরাম ইনস্টিটিউটের কোভিশিল্ড, রাশিয়ার স্পুটনিক ভি এর পর চতুর্থ ভ্যাক্সিন হিসেবে জনসন অ্যান্ড জনসন অনুমোদন পেল।

মার্কিন সংস্থা মডার্নাও ভ্যাক্সিন জরুরী প্রয়োগের জন্য অনুমোদন পেয়েছে। কিন্তু আগামী বছরের আগে দেশে সেটা পাওয়া যাচ্ছে না। এদিন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মাণ্ডব্য টুইট করে সুখবর দেন।

Mansukh Mandaviya

          @mansukhmandviya
India expands its vaccine basket! Johnson and Johnson’s single-dose COVID-19 vaccine is given approval for Emergency Use in India. Now India has 5 EUA vaccines. This will further boost our nation’s collective fight against #COVID19
তিনি লেখেন, “ভারত টীকার ঝুলি আরো সম্প্রসারণ করল। জনসন অ্যান্ড জনসনের সিঙ্গল ডোজ ভ্যাক্সিনকে ভারতে জরুরী প্রয়োগের জন্য অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এখন ভারতের হাতে পাঁচটি ইইউএ ভ্যাক্সিন রয়েছে। 
- Sponsored -

- Sponsored -

সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকায় একটি ট্রায়ালে দেখা গিয়েছে, জনসন অ্যান্ড জনসনের ভ্যাক্সিন মৃত্যু ঠেকাতে সক্ষম হয়েছে। সিঙ্গল ডোজ ৯১ থেকে ৯৬.২ শতাংশ মৃত্যু ঠেকাতে পারে। এছাড়া ৬৭ শতাংশ ক্ষেত্রে বেটা করোনাভাইরাস ভ্যারিয়েন্টকে প্রতিহত করে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া আটকাতে পারে। ও ৭১ শতাংশ ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য।

প্রসঙ্গত, আজ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী জানা গিয়েছে যে, এখনো পর্যন্ত দেশে ৫০ কোটি ভ্যাক্সিনেশন সম্পন্ন হয়েছে। আজ ১৮ থেকে ৪৪ বছর বয়সীদের মধ্যে প্রায় ২৩ লক্ষ মানুষ ভ্যাক্সিনের প্রথম ডোজ পেয়েছেন। আর ৪ লক্ষ ৩২ হাজারের বেশী মানুষ ভ্যাক্সিনের দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন।

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored