Indian Prime Time
True News only ....

চা গাছ কেটে ও উপড়ে ফেলার অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে

- sponsored -

- sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

অনুপ জয়সওয়ালঃ উত্তর দিনাজপুরঃ তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে বিজেপির বিরুদ্ধে চা বাগানের চা গাছ কেটে ও উপড়ে ফেলার অভিযোগ উঠল। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তর দিনাজপুরের চোপড়া থানার বিলাসী মৌজা এলাকায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ায়।

অভিযোগ, মঙ্গলবার রাতে বিজেপির দুষ্কৃতীরা চা বাগানের প্রায় চার হাজার চা গাছ কেটে এবং উপড়ে ফেলে নষ্ট করে দেয়। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে পুলিশকে জানানো হয়েছে বলে চা বাগানের মালিক তথা স্থানীয় তৃণমূল নেতা ও গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য জানান। পুলিশ এসে প্রাথমিক তদন্ত করে গিয়েছেন।

- Sponsored -

- Sponsored -

হাসান কামাল রানা আরো অভিযোগ করেন যে, “বিজেপির আশ্রিত দুষ্কৃতীরা এই জঘন্য কাজটি করেছে।পুলিশ প্রশানকে কয়েকজনের নাম বলা হয়েছে। আমাকে বিজেপি ভোটের আগে এরকম অনেক ধমকি দিয়েছিল”।

তিনি তৃণমূল কংগ্রেস করেন এবং চোপড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলের টিকিটে জয়ী হওয়া সদস্য। ভোটের আগে বেশ কয়দিন ধরে বিজেপির তরফে হাসান কামাল রানাকে চুপ করে থাকতে বলা হয়েছিল। সাথে একাধিক হুঁশিয়ারিও দেওয়া হয়েছিল।কিন্তু হাসান কামাল রানাকে সেগুলো কোনো তোয়াক্কা করেননি। এই ঘটনার জেরে তিনি চরম আর্থিক সঙ্কটের মুখোমুখি এসে দাঁড়িয়েছেন। পাঁচ বিঘা জমির এই চা বাগানে কয়েক লক্ষ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

যদিও উত্তরদিনাজপুর জেলার বিজেপির সহসভাপতি সুরুজিত সেন জানিয়েছেন যে, “এটি সম্পূর্ণ মিথ্যা অভিযোগ। বরং তাদের দলের সদস্যদের হাজার হাজার নার্সারি গাছ উপড়ে ফেলে নষ্ট করে দেওয়া হয়েছে। গতকাল এক বিজেপি কর্মী নিজের চা বাগান থেকে চা পাতা তুলে গাড়িতে করে ফ্যাক্টরিতে নিয়ে যাওয়ার পথে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা চা পাতা সহ গাড়িটিকে ছিনতাই করে নিয়ে যাওয়া হয়। ভোট ঘোষণার পর থেকে চোপড়ায় বিজেপির কর্মীরা ঘর ছাড়া। তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা অনেক দোকানপাট লুঠ-পাট সহ জমি দখল, চা বাগান দখল করেছে। আমরা পুলিশ প্রশাসনকে অনেকবার জানিয়েছি এই অভিযোগ ভিত্তিহীন। এটা তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। এতে বিজেপির কেউ জড়িত নেই”। চোপড়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored