Indian Prime Time
True News only ....

হাইকোর্টের নির্দেশকে পালন করতে কড়া নজরদারী পুলিশের

- Sponsored -

- Sponsored -

চয়ন রায়ঃ কলকাতাঃ সুপ্রিমকোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী পরিবেশবান্ধব বাজি অর্থাত্‍ সবুজ বাজি পোড়ানো যাবে। তাই শীর্ষ আদালতের নির্দেশের পরেই গতকাল কলকাতা হাইকোর্টও ঘোষণা করেছে যে, নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে কালীপুজো, দীপাবলি ও ছটপুজোতে সবুজ বাজি পোড়ানো যাবে। আর নিয়ম ভঙ্গ করলে কড়া আইনী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

আদালতের তরফ থেকে এও জানানো হয়েছে যে, কোনো আবাসনের ছাদেও বাজি পোড়ানো যাবে না। রাজ্য দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ বাজি পোড়ানোর নির্দিষ্ট সময়ও দিয়ে দিয়েছে। বাতাসের এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স দেখে ঠিক কোন সময়ে বাজি পোড়ালে দূষণের মাত্রা বাড়বে না এবং মানুষের কম ক্ষতি হবে তা পরীক্ষা নিরীক্ষার মাধ্যমেই ঠিক করা হয়েছে।

বাতাসে ভাসমান কণার পরিমাণ দেখে কালী পুজোর রাতেরবেলা ৮ টা থেকে ১০টা পর্যন্ত বাজি পোড়ানোর সময় ঠিক করা হয়েছে। আর ছট পুজোর সকালবেলা ৬ টা থেকে ৮ টা অবধি বাজি পোড়ানোর সময় ঠিক করা হয়েছে। বড়দিন ও ইংরাজির নতুন বর্ষে রাতেরবেলা ১১ টা ৫৫ মিনিট থেকে ১২ টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত বাজি ফাটানো যাবে।  

আদালতের নির্দেশ যাতে যথাযথ ভাবে মেনে চলা হয় তাই আজ থেকেই কলকাতা পুলিশ শহরের অলি গলিতে কড়া নজর রাখবে। বেআইনি বাজি কেনা, বিক্রি, আমদানী সহ বাজি মজুত করতে দেখলেই পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।

কলকাতা পুলিশ নিজেদের ফেসবুক পেজে জানিয়েছে, নির্ধারিত সময়ের বাইরে বাজি পোড়াতে দেখলে অথবা কোনোরকম বেআইনি বাজি কিনতে কিংবা বিক্রি করতে দেখলেই খবর দিন। ইতিমধ্যেই দু’টি হেল্পলাইন নম্বর চালু করা হয়েছে। কোথাও নিয়মের বাইরে গিয়ে বাজি ফাটানো হলেই সরাসরি ৯৮৭৪৯ – ০১৫২২ এই হেল্পলাইন নম্বরে অভিযোগ জানান।

নিয়ম ভাঙতে দেখলে ৯৪৩২৬ – ২৪৩৬৫ এই নম্বরে হোয়াটসঅ্যাপ করেও অভিযোগ জানানো যাবে। হেল্পলাইন নম্বরগুলিতে নিজের পরিচয় গোপন করেও অভিযোগ জানানো যাবে। 

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored