Indian Prime Time
True News only ....

মাছ ধরতে গিয়ে আর ফেরা হলো না পরিবারের কাছে

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

পিঙ্কি পালঃ দক্ষিণ চব্বিশ পরগণাঃ ফের বাঘের আক্রমণে দক্ষিণ চব্বিশ পরগণার সুন্দরবনের বেণীফেলির জঙ্গলে মৃত্যু হলো ২৯ বছর বয়সী কুলতলির দেউলবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা শঙ্কর সর্দার নামে একজন মৎস্যজীবীর।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গত বৃহস্পতিবার তিনজন সঙ্গীকে নিয়ে নৌকায় করে মাছ ও কাঁকড়া ধরতে জঙ্গলে গিয়েছিলেন। বিকেলবেলা বেণীফেলির জঙ্গল লাগোয়া খাঁড়িতে মাছ এবং কাঁকড়া ধরার সময় আচমকা শঙ্করবাবুর উপর জঙ্গল থেকে বাঘ ঝাঁপিয়ে পড়ে। এরপর ঘাড়ে কামড় বসিয়ে তাকে তুলে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।

কিন্তু সাথে থাকা সঙ্গীরা বৈঠা ও লাঠি নিয়ে বাধা দেওয়ায় বাঘটি জঙ্গলে পালিয়ে যায়। তারপর শঙ্করবাবুকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে কুলতলি-জয়নগর গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। তবে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় রাতেরবেলাই কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়।

- Sponsored -

- Sponsored -

শেষমেশ আজ জীবনের লড়াইতে হেরে যান। শঙ্করবাবুর মৃত্যুতে পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। মানবাধিকার সংগঠন এপিডিআর নিহত মৎস্যজীবীর পরিবারকে আর্থিক ক্ষতিপূরণের দাবী জানিয়েছে।

জেলার সহ সম্পাদক মিঠুন মণ্ডল জানান, ‘‘গত বছরই ৩৫ জন মৎস্যজীবী বাঘের হামলার মুখে পড়েন। এর মধ্যে ২৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। চলতি বছর আক্রান্ত চার জনের মধ্যে এক জনের মৃত্যু হল। কিন্তু কেউ সরকারী সাহায্য পায়নি। তাই আমরা চাই নিয়ম মেনে এই সব মৎস্যজীবীদের পরিবারকে আর্থিক সাহায্য করা হোক।’’

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored