Indian Prime Time
True News only ....

বাঁশ বাগান থেকে উদ্ধার ১ তৃণমূল কর্মীর রক্তাক্ত দেহ

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ মালদাঃ গতকাল মালদার পুখুরিয়ার চাতর গ্রামে গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্যার নিখোঁজ স্বামী তথা তৃণমূল কর্মীর রক্তাক্ত দেহ উদ্ধারকে কেন্দ্র করে তুমুল উত্তেজনা তৈরী হয়। মৃতের নাম সাদেক আলি। বয়স ৪৮ বছর। পেশায় এক জন মিষ্টি ব্যবসায়ী ছিলেন।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার রাতেরবেলা ৮টা নাগাদ সাদেক আলি দোকান বন্ধ করে দেন। কিন্তু রাতেরবেলা বাড়ি ফেরেননি। পরে এক লক্ষ টাকা মুক্তিপণ চেয়ে পরিবারের সদস্যদের ফোন করা হয়। পরদিন সকালবেলা আরো বেশী টাকা মুক্তিপণ চেয়ে ফোন করা হয়। আর দুপুরবেলা বাড়ি থেকে এক কিলোমিটার দূরে গ্রামেরই এক বাঁশ বাগানে তার রক্তাক্ত ক্ষত-বিক্ষত দেহ উদ্ধার হয়েছে।

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored -

স্ত্রী আনোয়ারা বিবি অভিযোগ করেন যে, “রতুয়া দুই নম্বর ব্লকের শ্রীপুর দুই নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েত এবার তৃণমূলের দখলে গিয়েছে। প্রধান পদ নিয়ে সেখানে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব চলছে। আর এই রাজনৈতিক কারণে স্বামীকে অপহরণ করে খুন করা হয়েছে।” পুলিশ অভিযোগের ভিত্তিতে খুনের মামলা রুজু করে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছেন। পাশাপাশি মৃতদেহ মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছেন।

তৃণমূলের জেলা সভাপতি আব্দুর রহিম বক্সী বলেন, “দলের কর্মীর এভাবে মৃত্যুর ঘটনা খুবই দুর্ভাগ্যজনক। রাজনৈতিক কারণে খুন হয়েছে কি না, তা পুলিশ খতিয়ে দেখছেন। তবে এই খুনের ঘটনায় তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের কোনো ব্যাপার নেই।”

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored