Indian Prime Time
True News only ....

বালি বোঝাই ট্রাকের ধাক্কায় মৃত্যু হলো ১ ব্যক্তির

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ আসানসোলঃ ফের আসানসোল দক্ষিণ থানার ডামরায় বালি বোঝাই ট্রাকের ধাক্কায় মৃত্যু হলো ৫৫ বছর বয়সী গরিবন ধরি নামে এক জন সাইকেল আরোহীর।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এদিন একটি ট্রাক ডামরার কাছে দামোদর থেকে বালি তুলে কালীপাহাড়ির দিকে যাচ্ছিল। ওই সময় ঘুষিক কোলিয়ারির সামনে গরিবনবাবুকে ট্রাকটি চাপা দিয়ে ট্রাকটিকে ঘটনাস্থলে রেখে চালক ও খালাসি চম্পট দেন। এরপর এলাকাবাসীরা খবর পেয়ে এলাকায় পৌঁছে ট্রাকটি ভাঙচুর করেন।

এছাড়া নদের ঘাটে এবং আশপাশে বেশ কয়েকটি ট্রাক দাঁড়িয়েছিল সেগুলিও ভাঙচুর করেন। এমনকি পুলিশকে ঘিরেও বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। পুলিশ কোনোভাবে দেহটি উদ্ধার করে আসানসোল জেলা হাসপাতালে পাঠান। কিন্তু এরপরে এলাকাবাসীরা প্রায় দুই ঘণ্টার জন্য ঘুষিক ও কালীপাহাড়ির রাস্তা অবরোধ করেন রাখেন।

এদিন এলাকায় বিক্ষোভ দেখানোর পরে এলাকাবাসীরা আসানসোল দক্ষিণ থানাতেও আধ ঘণ্টার জন্য বিক্ষোভ দেখান। আর মৃতের পরিবারকে আর্থিক ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবী জানান। আর নির্দিষ্ট পরিমাণের চেয়ে অতিরিক্ত পরিমাণে বালি বোঝাই ট্রাক চলাচল বন্ধের দাবী জানান।

এলাকাবাসীদের অভিযোগ, “প্রতিদিন রাতেরবেলা শতাধিক ট্রাক নদ থেকে নির্দিষ্ট পরিমাণের অনেক বেশী বালি তুলে এই রাস্তা দিয়ে চলাচল করে। তাই প্রায়শই এই ধরণের দুর্ঘটনা ঘটে থাকে। এগুলির জন্য সাধারণ মানুষের চলাচল প্রায় বন্ধ হয়ে গেছে। বার বার জানিয়েও লাভ হচ্ছে না।”

- Sponsored -

- Sponsored -

এক মাস আগেও ট্রাকের চাকায় রাস্তা ও জলের পাইপ ভেঙে যাওয়ার জন্য অবরোধ করা হয়েছিল। সেই সময় পুলিশ বালি বোঝাই ট্রাক চলাচলের উপরে নিয়ন্ত্রণ আনার প্রতিশ্রুতি দেয় পুলিশ কিন্তু তাতে কোনো কাজ হয়নি বলে।

পুলিশ কমিশনার সুধীরকুমার নীলাকান্তম বলেন, “বাসিন্দাদের অভিযোগ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। বিষয়টি প্রমাণিত হলে অবশ্যই পদক্ষেপ করা হবে। পুরো ঘটনারই তদন্ত করা হচ্ছে। এলাকায় বালি বোঝাই ট্রাক চলাচলের উপরে নিয়ন্ত্রণের যে দাবী উঠেছে তা খতিয়ে দেখা হবে।”

পর পর বালি বোঝাই ট্রাকের ধাক্কায় মৃত্যুর ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক তরজাও শুরু হয়েছে। বিজেপি নেতা জিতেন্দ্রতিওয়ারি টুইটারে লেখেন, “ফের বালি মাফিয়াদের জন্য আরেক জনের মৃত্যু ঘটল।” গোটা বিষয়টি প্রশাসনের ভূমিকা নিয়ে সরব হওয়ার পাশাপাশি আইনী পদক্ষেপ করার হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন।

তবে তৃণমূলের অন্যতম রাজ্য সম্পাদক ভি শিবদাসন জানান, “বিরোধীরা যেকোনো মর্মান্তিক ঘটনা নিয়েও রাজনীতি করতে অভ্যস্ত। ওদের কথার কোনো ভিত্তি নেই। প্রশাসন সব দিক খতিয়ে দেখছে।” এদিকে তৃণমূল নেতা তথা কাউন্সিলর অশোক রুদ্র বলেন, “অতিরিক্ত বালি বোঝাই ট্রাক আমরা আর চলতে দেব না।”

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored