Indian Prime Time
True News only ....

চলুন আজ জেনে নিই মন্ত্রী চন্দ্রনাথ সিংহের বাড়ির পুজোর ইতিহাস

- sponsored -

- sponsored -

ADVERTISMENT

ADVERTISMENT

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ বীরভূমঃ বীরভূমের মুরারই দুই নম্বর ব্লকের কলহপুর গ্রামে রাজ্যের ক্ষুদ্র, মাঝারি শিল্প ও বস্ত্রমন্ত্রী চন্দ্রনাথ সিংহর বাড়ির পুজো শুধুই পারিবারিক পুজো নয়। এই পুজোয় গোটা গ্রাম মেতে ওঠে।

সিংহ পরিবারের সদস্যদের একাংশ জানান, ‘‘১৪৫৪ সালে কমললোচন ঘোষ এই পুজোর সূচনা করেন। এখানে বৈষ্ণব মতে দেবীর পুজো হয়। সন্ধিপুজোর সময়ে কুমড়ো বলি দেওয়ার প্রচলন রয়েছে। এই পরিবারের দুর্গা প্রতিমার সিংহের মুখের আদল ঘোড়ার মতো। কমললোচনের ভাই রামলোচন ঘোষের এক মাত্র মেয়ে গয়াসুন্দরী ঘোষের সাথে নলহাটির জগধরী গ্রামের বক্রনাথ সিংহের বিয়ে হওয়ায় ঘোষ ও সিংহ পরিবারের যৌথ ভাবে পুজো হয়।

- Sponsored -

- Sponsored -

পুজোর খরচের দশ আনা সিংহ পরিবার এবং ছয় আনা ঘোষ পরিবারের। প্রাচীন পুজো হওয়ায় দূর থেকেও অনেক ভক্ত আসেন। সপ্তমী, অষ্টমী ও নবমী অবধি লুচি-তরকারী ভোগ হয়। দশমীর দিন দই এবং চিঁড়ের ভোগ থাকে। সেদিন বাড়ির সকলে আতপ চালের ভাত খান। পরিবারের পুরুষ সদস্যেরাই পুজোর ভোগ রান্না করেন। মহিলারা বাকি পুজোর দায়িত্ব পালন করে থাকেন।

দশমীর দিন পুরনো রীতি মেনে বাঁশের মাচা করে প্রতিমা বিসর্জনে নিয়ে যাওয়া হয়।” মন্ত্রী চন্দ্রনাথ সিংহ বলেন, ‘‘হাজার ব্যস্ততা থাকলেও পুজোয় গ্রামের বাড়িতে থাকি। পরিবারের সকল সদস্যদের সাথে এই দিনগুলি খুব আনন্দে কাটে। গ্রামের মানুষজনের সাথেও আনন্দ করি।”

- Sponsored -

- Sponsored -

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

- Sponsored -

- Sponsored -

- Sponsored

- Sponsored